Airtel & Robi User Only

প্রচ্ছদ » গণমাধ্যমের খবর » বিস্তারিত

শুভ জন্মদিন অমরেশ ও অশোকেশ

২০১৮ মে ১০ ২২:০৯:২১
শুভ জন্মদিন অমরেশ ও অশোকেশ

দ্য রিপোর্ট ডেস্ক: দৈনিক সমকালের জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক ও ছড়াকার, সাহিত্যিক অমরেশ রায় শিশু সাহিত্যিক, শিশু-সাংস্কৃতিক সংগঠক অশোকেশ রায়ের জন্মদিন ১১ মে। শুভ জন্মদিন অমরেশ ও অশোকেশ।

১৯৭৩ সালের এই দিনে কুষ্টিয়ায় নির্মলা রাণী রায়ের কোল জুড়ে আসে দুই সন্তান। অমরেশ রায় ও অশোকেশ রায়। যমজ দুই ভাইয়েরই পেশা সাংবাদিকতা। বাবা মুক্তিযোদ্ধা অর্দ্ধেন্দু শেখর রায় ও মা নির্মলা রাণী রায়ের ছয় সন্তানের মধ্যে অমরেশ চতুর্থ ও অশোকেশ পঞ্চম সন্তান।

অমরেশ ১৯৯০ সালে ফরিদপুর উচ্চ বিদ্যালয় থেকে বিজ্ঞান বিভাগে এসএসসি, ১৯৯২ সালে সরকারি রাজেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের বিজ্ঞান বিভাগ থেকে এইচএসসি, একই কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগ থেকে ১৯৯৮ সালে অনার্স ও ২০০০ সালে মাস্টার্স সম্পন্ন করেন। অমরেশ রায় ১৯৮৮ সালে ছাত্র অবস্থায় ফরিদপুরের অর্ধসাপ্তাহিক বাংলা সংবাদে শহর প্রতিনিধি হিসেবে সাংবাদিকতা শুরু করেন। ২০০৯ সালের ২ ডিসেম্বর কৃতি দত্তের সঙ্গে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। এই দম্পতির অঙ্কুর রায় নামে সাড়ে সাত বছর বয়সী এক ছেলে ও অর্শা রায় নামে আড়াই বছর বয়সী এক মেয়ে রয়েছে।

তার পছন্দের রং সবুজ ও লাল। প্রিয় ফুল গোলাপ। খেতে ভালবাসেন খিচুড়ি ও খাসির মাংস। আর অবসর সময়ে এই সাংবাদিক লেখালেখি করতেই পছন্দ করেন। জন্মদিনের বিশেষ আয়োজন সম্পর্কে অমরেশ রায় দ্য রিপোর্টকে বলেন, ‘জন্মদিন উপলক্ষে আমার স্ত্রী ও সন্তানরা বৃহস্পতিবার রাতেই কেক কেটেছে। এছাড়া তেমন কোনো আয়োজন নেই। অন্যান্য দিনের মতো এদিনটিও কাটাব।’

অশোকেশ ১৯৯০ সালে ফরিদপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের বিজ্ঞান বিভাগ থেকে এসএসসি, ১৯৯২ সালে সরকারি রাজেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের বিজ্ঞান বিভাগ থেকে এইচএসসি, একই কলেজের রাষ্ট্র বিজ্ঞান বিভাগ থেকে ১৯৯৮ সালে অনার্স ও ২০০০ সালে মাস্টার্স সম্পন্ন করেন।

১৯৮৮ সালে স্কুল ছাত্রাবস্থায় ফরিদপুরের অর্ধসাপ্তাহিক বাংলা সংবাদে শহর প্রতিনিধি হিসেবে সাংবাদিকতা শুরু করেন। ২০০৯ সালের ১১ মার্চ নিপা তরফদারের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন। এই দম্পতির অবন্তিকা রায় নামে আট বছর বয়সী এক মেয়ে ও অক্ষর রায় নামে সাড়ে তিন বছর বয়সী এক ছেলে রয়েছে। তার পছন্দের রং লাল-সাদা। প্রিয় ফুল শিউলি। খেতে ভালোবাসেন খিচুড়ি ও কই মাছ। আর অবসর সময়ে এই সাংবাদিক পরিবারকে সময় দেন।

জন্মদিনের বিশেষ আয়োজন সম্পর্কে অশোকেশ রায় দ্য রিপোর্টকে বলেন, ‘জন্মদিন উপলক্ষে আমার স্ত্রী ও সন্তানরা বৃহস্পতিবার রাতেই কেক কেটেছে। এছাড়া তেমন কোনো আয়োজন নেই।’

দ্য রিপোর্ট/এমএসআর/মে ১০, ২০১৮)