Airtel & Robi User Only

প্রচ্ছদ » শেয়ারবাজার » বিস্তারিত

ব্যাংকের পিই রেশিও এখনো একক অঙ্কে

২০১৯ জুলাই ১৩ ১৪:১৭:০১
ব্যাংকের পিই রেশিও এখনো একক অঙ্কে

দ্য রিপোর্ট প্রতিবেদক : পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানিগুলোর বিভিন্ন খাতের মধ্যে একমাত্র ব্যাংকিং খাতের পি/ই রেশিও বা মূল্য আয় অনুপাত এখনো একক অঙ্কে আছে। বাকি খাতগুলোর পিই রেশিও ১০ বা তার বেশি। গত সপ্তাহের লেনদেন শেষে ব্যাংক খাতের মূল্য আয় অনুপাত দাঁড়ায় ৮। এটি ২১ খাতের মধ্যে সবচেয়ে কম। সবচেয়ে বেশি পিই রেশিও হচ্ছে আর্থিক খাতে। ব্যাংক বহির্ভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোর (এনবিএফআই) জন্য নির্ধারিত এই খাতের পিই রেশিও ছিল ২৭ দশমিক ৩০।

উল্লেখ্য, পিই রেশিও বা মূল্য-আয় অনুপাত পুঁজিবাজারে একটি কোম্পানির শেয়ার কতটা বিনিয়োগ অনুকূল তা বুঝাতে ব্যবহার করা হয়ে থাকে। শেয়ারের সর্বশেষ বাজার মূল্যকে এর শেয়ার প্রতি আয় বা ইপিএস দিয়ে ভাগ করলে পিই রেশিও বা মূল্য-আয় অনুপাত পাওয়া যায়। সাধারণভাবে পিই রেশিও যত কম হয় সংশ্লিষ্ট শেয়ারকে তত নিরাপদ মনে করা হয়। অন্যদিকে পিই রেশিও বেশি হলে সেই শেয়ারকে তত বেশি ঝুঁকিপূর্ণ মনে করা হয়ে থাকে। এ বিবেচনায় এখনো ব্যাংকিং খাতের শেয়ারই বিনিয়োগের জন্য সবচেয়ে অনুকূল।

অন্যান্য খাতের পিই রেশিও বিশ্লেষণে দেখা যায়, জ্বালানি ও বিদ্যুৎ খাতে ১২ দশমিক ২০, টেলিকমিনেকেশন খাতে ১২ দশমিক ২০, প্রকৌশল খাতে ১৪ দশমিক ২০, বস্ত্র খাতে ১৫ দশমিক ১০, সাধারণ বিমা খাতে ১৫ দশমিক ৯০, ওষুধ ও রসায়ন খাতে ১৭ দশমিক ২০, ট্যানা্রী খাতে ১৮ দশমিক ৪০, সেবা ও আবাসন খাতে ১৮ দশমিক ৬০, সিরামিক খাতে ১৯ দশমিক ৫০, পেপার ‍ও প্রিন্টিং খাতে ২১ দশমিক ৪০, খাদ্য ও আনুষাঙ্গিক খাতে ২১ দশমিক ৬০, তথ্য ও প্রযুক্তি খাতে ২৩ দশমিক ৩০, বিবিধ খাতে ২৩ দশমিক ৫০ ও সিমেন্ট খাতে ২৭।

লংকাবাংলা সিকিউরিটিজ লিমিটেড সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

(দ্য রিপোর্ট/একেএমএম/জুলাই ১৩,২০১৯)